ব্রিটেনের মানুষের জীবনযাপন খরচ বাড়ল

অর্থনীতিবিদদের পূর্বাভাসকে ভুল প্রমাণ করে ফেব্রুয়ারিতে নতুন করে মাথা তুলল ব্রিটেনের মূল্যবৃদ্ধির হার।

বুধবার সে দেশের পরিসংখ্যান দফতরের তরফে জানানো হয়েছে, গত মাসে ওই হার জানুয়ারির ১০.১% থেকে বেড়ে ১০.৪ শতাংশে পৌঁছেছে। চার মাস পরে তা আবার বাড়ল।

অর্থনীতিবিদেরা মনে করেছিলেন, মূল্যবৃদ্ধি ৯.৯ শতাংশের বেশি হবে না। কিন্তু খাদ্যপণ্য এবং জ্বালানির দাম বৃদ্ধিই মূলত ওই হারকে ঠেলে তুলেছে। ফলে আরও বাড়তে চলেছে ব্রিটেনের মানুষের জীবনযাপনের খরচ।

বিশেষজ্ঞদের একাংশের বক্তব্য, জিনিসপত্রের দাম যখন কিছুটা হলেও কমছিল তখন অনেকেই মনে করেছিলেন এ বার আর্থিক বৃদ্ধির চাকায় গতি আনতে সুদ বৃদ্ধি স্থগিত রাখতে পারে ব্যাঙ্ক অব ইংল্যান্ড। কিন্তু এখন মনে হচ্ছে ব্রিটেনের শীর্ষ ব্যাঙ্কের কাজ শেষ হয়নি। পরবর্তী ঋণনীতিতে তা আরও অন্তত ২৫ বেসিস পয়েন্ট বাড়তে পারে। যা বিশ্ব জুড়ে ব্যাঙ্কিং সঙ্কটের আবহে অর্থনীতির পক্ষে আরও উদ্বেগের।

বুধবার ব্রিটেনের সরকারি পরিসংখ্যানে জানানো হয়েছে, গত মাসে খাবারদাবারের দাম এক বছর আগের তুলনায় ১৮% বেড়েছে। ভর্তুকি সত্ত্বেও বিদ্যুতের বিল এবং প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম চড়েছে ২৭%। সংশ্লিষ্ট মহলের ব্যাখ্যা, এই মূল্যবৃদ্ধি জীবনযাত্রার সামগ্রিক খরচকেই বাড়িয়ে তুলেছে। মানুষের মধ্যে বাড়ছে অতিরিক্ত মজুরির দাবি। কিন্তু তা নিশ্চিত করার জন্য বৃদ্ধির চাকায় যে জ্বালানি দরকার, বাজারে সেই ভাল চাহিদা এবং ঋণে নিচু হারের সুদই এখন অমিল।

 

Leave a Comment