ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বে ১৫টি যৌ’তুকবিহীন বিয়ে !

গাজীপুরের টঙ্গীর তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় দিন বাদ আসর শতাধিক যৌ’তুকবিহীন বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। বিশ্ব ইজতেমায় দ্বিতীয় পর্বেও বিশেষ আকর্ষণ ছিল বিয়ে।

শনিবার (২১ জানুয়ারি) বাদ আসর মূল বয়ান মঞ্চের পাশে এ বিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ব ইজতেমার দ্বিতীয় পর্বের মিডিয়া সমন্বয়কারী মো. সায়েম।

তিনি জানান, ইজতেমায় আদি তাবলিগের শীর্ষ মুরুব্বি দিল্লির মাওলানা সাদ কান্ধলভীর ছোট ছেলে মাওলানা ইলিয়াস বাদ আসর বয়ান শুরু করেন। বয়ান শেষে মাওলানা ইলিয়াস বিয়ে পড়ানোর কথা ছিল। বয়ান শেষ করে বিয়ে পড়ানোর খুৎবা শুরুর করার আগ মুহুর্তে মাওলানা সাদ কান্ধলভীর বড় ছেলে মাওলানা ইউসুফ কান্ধলভী উপস্থিত হলে ছোট ভাই মাওলানা ইলিয়াস তাকে বিয়ে পড়ানোর অনুরোধ জানান। ছোট ভাই মাওলানা ইলিয়াসের অনুরোধে বড় ভাই মাওলানা ইউসুফ কান্ধলভী এ বিয়ে পড়ান।

হজরত ফাতেমা (রা.) ও হজরত আলী (রা.) বিয়ের দেনমোহর অনুসারে বিনা যৌ’তুকে মোহরে ফাতেমি প্রদানের মাধ্যমে ১৫টি বিয়ে সম্পন্ন হয়।

বয়ান শেষে বর-কনের অভিভাবকদের সম্মতিতে বরের উপস্থিতিতে এ বিয়ে পড়ানো হয়। বিয়ে শেষে উপস্থিত দম্পতিদের স্বজন ও মুসল্লিদের মধ্যে খোরমা খেজুর বিতরণ করা হয়।

মো. সায়েম বলেন, দুই বছর বন্ধ থাকার পর এবার মূল মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয়েছে যৌ’তুকবিহীন গণবিয়ে। বর এবং কনে পক্ষের লোকজনের উপস্থিতিতে শতাধিক গণবিয়ে অনুষ্ঠিত হয়। বাদ আসর বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করে উপস্থিত মুসল্লিদের মধ্যে খেজুর বিতরণ করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *