অনলাইনে লুডো খেলা, প্রেমের টানে ঘর থেকে পালিয়ে পাকিস্তানি তরুণী ভারতে !

প্রথম আলাপ অনলাইনে লুডো খেলতে খেলতে। সেখান থেকে ভাললাগা এবং ভালবাসা। কিন্তু প্রেমের বাধা আন্তর্জাতিক সীমান্ত। কারণ প্রেমিক ভারতীয় হলেও প্রেমিকা পাকিস্তানি। কিন্তু প্রেমের টান সীমান্ত মানেনি। বৈধ কাগজপত্র ছাড়াই সীমান্ত পেরিয়ে ভারতে এসে গ্রেফতার পাকিস্তানি তরুণী ইকরা জিওয়ানি। গ্রেফতার ইরকার যুবক প্রেমিক মুলায়ম সিংহ যাদবও।

বিয়ে করে কয়েক দিন মাত্র তারা সংসার পেতেছিলেন বেঙ্গালুরুতে। তবে সোমবার দু’জনকেই গ্রেফতার করেছে বেঙ্গালুরুর পুলিশ।

বেঙ্গালুরু পুলিশ জানিয়েছে যে, অবৈধভাবে ভারতে প্রবেশ করার জন্য ১৯ বছর বয়সি পাকিস্তানি তরুণী ইরকাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তাকে আশ্রয় দেওয়ার জন্য গ্রেফতার করা হয়েছে মুলায়মকেও।
পাক
পুলিশ জানিয়েছে, অনলাইনে লুডো খেলার সময় ইকরা এবং মুলায়মের একে অপরের সঙ্গে পরিচয় হয়েছিল। সেই আলাপ, ভালবাসায় পরিণত হতেই ইকরা ভারতে আসার সিদ্ধান্ত নেন। ভারত-নেপাল সীমান্ত দিয়ে ভারতে প্রবেশ করেন তিনি। নেপালের কাঠমান্ডুতেই হিন্দু রীতি মেনে তাদের বিয়ে হয়। এর পর বিহারে চলে যান দম্পতি।

গত বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর, তারা বেঙ্গালুরুতে ফিরে আসেন। ততদিনে ইরকার নাম হয়েছে রাভা যাদব। তার নামে একটি ভুয়ো আধার কার্ডও তৈরি করিয়েছেন মুলায়ম। বেঙ্গালুরু ফিরে এসে তারা সারজাপুর রোডে গোবিন্দ রেড্ডি নামে এক ব্যক্তির বাড়িতে ভাড়ায় থাকতে শুরু করেন।

পুলিশ সূত্রে খবর, পেশায় নিরাপত্তারক্ষী মুলায়মের বাড়ি উত্তরপ্রদেশে। কিন্তু গত সাত বছর ধরে বেঙ্গালুরুতে রয়েছেন। তার দাবি, ইরকার বাড়ি যে পাকিস্তানে, তা তিনি জানতেন না। ইরকা তাকে বলেছিলেন যে তিনি হায়দরাবাদের বাসিন্দা।

পুলিশ ইরকা এবং মুলায়মের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে তদন্ত শুরুর পাশাপাশি বাড়ি মালিক গোবিন্দের বিরুদ্ধেও তদন্ত শুরু করেছে।

সূত্র: আনন্দবাজার

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *