রোনালদোর চেয়েও বেশি বেতনে মেসিকে পেতে চায় সৌদির আরেক ক্লাব!

বর্তমান সময়ে সবচেয়ে দামি ফুটবলার এখন কে? চোখ বন্ধ করে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর নাম বলে দেবে সবাই। সৌদি ক্লাব আল নাসর তার সঙ্গে আড়াই বছরের চুক্তি করেছে ২৪৬ মিলিয়ন পাউন্ড তথা প্রায় ৩০৪ মিলিয়ন ডলারের বিনিময়ে। এরই মধ্যে আল নাসরের জার্সি পরে সৌদি লিগে খেলাও শুরু করেছেন সিআর সেভেন। প্রতিদ্বন্দ্বী আল নাসর এত বড় তারকা নিয়ে এলো দলে, চ্যাম্পিয়ন আল হিলাল ক্লাব কী বসে থাকবে? মোটের ওপর, তারাও ফাঁকা জমি ছাড়তে নারাজ প্রতিপক্ষকে।

যে কারণে এখন তারা হাত বাড়িয়েছে আরও বড় তারকার দিকে। বিশ্বকাপজয়ী লিওনেল মেসিই তাদের লক্ষ্য। ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর সঙ্গে যে মূল্যে চুক্তি করেছে, সে মূল্যেই মেসিকে পেতে চায় আল হিলাল। পরিমাণটা বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৩ হাজার ২২০ কোটি। এ নিয়ে অবশ্য মেসির পক্ষ থেকে হ্যাঁ, না- কোনো কিছুই শোনা যায়নি। প্যারিস সেন্ট জার্মেইয়ের (পিএসজি) সঙ্গে চুক্তির মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা চলতি বছর জুনে।

এরপর তাদের সঙ্গে চুক্তি আর নাও বাড়াতে পারেন মেসি। ঘনিষ্ঠ মহলে তিনি নাকি তেমন ইচ্ছাই প্রকাশ করেছেন। যদি চুক্তি না’ই বাড়ান, তাহলে জুনেই মেসি হয়ে যাবেন ফ্রি এজেন্ট। তখন যে ক্লাবে ইচ্ছা সে ক্লাবে তিনি যেতেই পারেন। এতেই সম্ভাবনার পালে হাওয়া দিয়েছে সৌদি ক্লাব আল হিলাল। মেসির প্যারিস ছাড়ার গুঞ্জনের কথা প্রকাশ্যে আসতেই একাধিক ক্লাব তাকে পেতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে। আগ্রহী ক্লাবগুলোর অন্যতম সৌদি আরবের আল হিলাল।

এখনও অবশ্য তারা মেসির কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রস্তাব পাঠায়নি। সৌদির ফুটবলে এই দুই ক্লাবের লড়াই নয়। রোনালদোর সঙ্গে আল নাসরের চুক্তি সাক্ষর হওয়ার পর আল হিলাল তাদের স্মারকের দোকানে মেসির নাম লেখা ১০ নম্বর জার্সি বিক্রি করতেও শুরু করেছিল। অথচ তখন মেসিকে দলে নেওয়ার ইচ্ছার কথা জানাননি ক্লাবের কোনও কর্মকর্তাই। এবার সত্যিই সত্যি তারা মেসিকে কেনার জন্য ইচ্ছার কথা জানাচ্ছে। কী বলছে সৌদি আরবের ফুটবল ফেডারেশন? মেসিকে কেনার ব্যাপারে আল হিলালের ইচ্ছার কথা বাতাসের ন্যায় ছড়িয়ে পড়ে।

এ নিয়ে সৌদি আরবের ফুটবল ফেডারেশনের প্রধান স্প্যানিশ পত্রিকা মার্কাকে বলেছেন, ‘মেসি আমাদের দেশে খেলতে আসবে, এমন কিছু আমার জানা নেই। তেমন কিছু হলে সৌদির ফুটবল ফেডারেশনের প্রধান হিসাবে লুকিয়ে রাখতাম না। তবে আমাদের ঘরোয়া লিগে কোনও মেসিকে খেলতে দেখলে খুশিই হব। আমরা সব সময়ই আমাদের ফুটবলের উন্নতি চাই। রোনালদো আর মেসিকে আবার একই লিগে খেলতে দেখতে কে না চায়? এমন কিছু সত্যিই হতে চলেছে কিনা জানা নেই।’

এদিকে মেসি যদি আল হিলালে এসে যোগ দেন তাহলে বার্সেলোনা-রিয়াল মাদ্রিদের লড়াইয়ের উত্তেজনা সত্যিই এবার সৌদি আরবে দেখা যাবে! যদিও মেসিকে অন্তত আরও এক বছর ধরে রাখতে চায় পিএসজি। এর আগে মেসিও ২০২৪ সালের আগে নতুন কিছু না ভাবার কথা জানিয়েছিলেন। পিএসজির পর তিনি আমেরিকার মেজর সকার লিগে খেলতে পারেন বলে গুঞ্জন রয়েছে। আর্জেন্টিনার অধিনায়ক অবশ্য ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা সম্পর্কে কিছু জানাননি। আবার পিএসজির নতুন চুক্তির প্রস্তাবেও এখনও সম্মতি জানাননি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *