সিইও কেন, হলে তো সভাপতি হওয়াই ভালো: সাকিব

গত কয়েকদিন ধরে ক্রিকেট অঙ্গন সরব হয়ে আছে সাকিব আল হাসানের মন্তব্যে। বিপিএল শুরুর দুই দিন আগে টুর্নামেন্ট নিয়ে কড়া সমালোচনা করেন দেশের ক্রিকেটের সবচেয়ে বড় এই তারকা। বিভিন্ন অসঙ্গতিকেও সামনে নিয়ে আসেন তিনি।

সাকিব দাবি করেন, সিইওর দায়িত্ব পেলে এক-দুই মাসের ভেতরই সবকিছু ঠিক করতে পারবেন। তার এই মন্তব্য নিয়ে বিসিবিও জানায় তাদের অবস্থান। খেলা ছাড়লে তাকে সিইওর দায়িত্বে স্বাগত জানাবে বলে সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন কর্মকর্তারা।

এবার এই আলোচনা আবারও সরব হলো সাকিব আল হাসানের কল্যাণে। রোববার একটি বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানের অনুষ্ঠানে অংশ নেন সাকিব। সেখানে তাকে প্রশ্ন করা হয়, বিসিবি সিইওর দায়িত্ব দিলে নেবেন কি না। জবাবে সাকিব মুচকি হাসি দিয়ে বলেন, ‘হলে তো সভাপতি হওয়াই ভালো…’

এর আগে সাকিবের মন্তব্যের জবাবে বিপিএল গভর্নিং বডির চেয়ারম্যান শেখ সোহেল বলেন, ‘আজকে আসলে আমি সাকিবকে স্বাগত জানাই, ধন্যবাদ। যদি ও বিপিএলের সিইও হিসেবে আসতে চায়, ও আগ্রহ প্রকাশ করেছে। আমরা গভর্নিং বডি থেকে ওকে স্বাগত জানাই। ও যদি চায়, আগামী বছর এসে সিইওর দায়িত্ব পালন করুক। ’

‘দেশের প্রধানমন্ত্রী মনে করেন এখন শেখ হাসিনা আছে। উনি ১৫ বছর কাজ করে জনগণকে খুশি করতে পারেনি। সিনেমা দেখে কিন্তু সবকিছু বাস্তবতা পূরণ হয়নি। এখন তো ও খেলতেছে। খেলা ছেড়ে আসতে পারবে না। সামনের বছর চলে আসুক। ’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *