প্রেমে রাজি হলেই নোরা পেতেন বড় বাড়ি, বিলাসবহুল জীবন!

বলিউডের বর্তমান সময়ের আলোচিত অভিনেত্রীদের একজন নোরা ফাতেহি। কোমর দুলিয়ে লাখো তরুণের হৃদয় কেড়েছেন তিনি। তাকে পেতে মুখিয়ে থাকে হাজারো পুরুষ। সেই নোরা জানালেন তাকে প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল, প্রেমিকা হলেই পাবেন বাড়ি-গাড়ি, বিলাসবহুল জীবনযাপন!

নোরা ফাতেহি প্রকাশ করেছেন, ২১৫ কোটির অর্থ আত্মসাৎ মামলায় অভিযুক্ত কনম্যান সুকেশ চন্দ্রশেখর তাকে একটি বড় বাড়ি এবং বিলাসবহুল জীবনযাপনের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন, যদি তিনি তার প্রেমিকা হতে রাজি হন! মিডিয়া রিপোর্ট অনুসারে, দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্টে অভিনেত্রী এই বিবৃতি দিয়েছেন বলে জানা গেছে।

কনম্যান সুকেশ চন্দ্রশেখরের ২১৫ কোটি টাকার অর্থ আত্মসাৎ মামলায় জড়িত থাকার অভিযোগে দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্টে একটি নতুন বিবৃতি রেকর্ড করেছেন নোরা ফাতেহি। নোরা বলেন, তার কাছে সুকেশের পক্ষ থেকে প্রস্তাব আসে। তাকে বলা হয়, অনেক অভিনেত্রী সুকেশের সঙ্গ পেতে মরিয়া। তবে সুকেশ তাকে চেয়েছেন। তিনি রাজি হলে সুকেশ তাকে বড় বাড়ি ও বিলাসবহুল জীবনযাপন দেওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন। নোরা ছাড়াও অভিনেত্রী জ্যাকলিন ফার্নান্দেজ, নিকি তাম্বোলি, চাহাত খান্নাসহ অন্যরাও সুকেশের সঙ্গে তার কথিত মানি লন্ডারিং মামলার মধ্যে যুক্ত হয়েছেন।

নোরা তার বিবৃতিতে আরো জানান, তিনি সুকেশকে চিনতেন না। এমনকি সুকেশের সঙ্গে তার কখনো দেখা হয়নি। সুকেশের মামলায় অভিনেত্রীকে ডাকার পর তিনি সুকেশ সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পারেন। সহযোগী পিঙ্কি ইরানির মাধ্যমে সুকেশ বিভিন্ন অভিনেত্রী ও মডেলের কাছে প্রস্তাব পাঠান বলেও অভিযোগ করেন নোরা।

নোরা ফাতেহির সাম্প্রতিক বিবৃতিটি দিল্লির পাতিয়ালা হাউস কোর্টে হাজির হওয়ার কয়েক দিন পরে প্রকাশ্যে আসে। চাঁদাবাজির মামলার বিষয়ে তার বক্তব্য রেকর্ড করা হয়েছে। তার বক্তব্য সাক্ষ্য এখন মামলার সাক্ষী হিসেবে বিবেচনা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে। ২১৫ কোটি টাকার অর্থ আত্মসাৎ মামলায় এখন কারাগারে রয়েছেন অভিযুক্ত আসামি কনম্যান সুকেশ চন্দ্রশেখর।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *